বুধবার, ১৬ই জানুয়ারি, ২০১৯ ইং। ৩রা মাঘ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ। দুপুর ১:৫১








প্রচ্ছদ » বিচিত্র সংবাদ

অবশেষে, ২০৬ বছর পর মিললো নেপোলিয়নের লুকিয়ে রাখা ‘গুপ্তধন’!

ইতিহাসের কালজয়ী পুরূষ ফ্রান্সের সম্রাট নেপোলিয়ান বোনোপার্ট ১৭৬৯ সালের ১৫ই আগস্ট ফ্রান্সের কর্সিকা দ্বীপের অ্যাজাক্সিউ অঞ্চলে জন্মগ্রহণ করেন । কর্সিকা দ্বীপটি পূর্বে জেনোয়া প্রজাতন্ত্রের অধীনে ছিল। পরবর্তীতে দ্বীপটি ফ্রান্সের অধিনস্থ হয়। নেপোলিয়ানের পুর্বপুরুষরা ছিলো ইতালিয়ান তুসকান গোত্রের।

১৮ই মে ১৮০৪ থেকে ১১ই এপ্রিল ১৮১৪ পর্যন্ত তিনি ফরাসির সম্রাট ছিলেন  এবং ১৭ই মার্চ ১৮০৪ থেকে তিনি ইতালির অধিপতিও ছিলেন। ১৮১৫ সালের ১৫ই জুলাই তিনি ব্রিটিশদের সাথে বিখ্যাত ওয়ার্টলুর যুদ্ধে তিনি পরাজিত হন এবং আত্মসমর্পনের পর সেন্ট হেলেনা দ্বীপে নির্বাসিত হন।

এই মহান বীর ১৮২১ সালের  ৫ ই মে সেন্ট হেলেনা দ্বীপে মৃত্যুবরণ করেন। তার মৃত্যুর পর ২০৬ বছর ধরে তার রেখে জাওয়া  গুপ্তধন খুঁজে  চেষ্টা করে যাচ্ছেন গবেষকরা।

রাশিয়ার ভায়াচেসলাভ রিজকোভ নামের এক এক বিজ্ঞানীর দাবি,  সম্রাট নেপোলিয়নের লুকিয়ে রাখা ৮০ টন সোনার সন্ধান পাওয়া গেছে।

বহু ইতিহাসবিদের দাবি করেন, ফরাসি সম্রাট নেপোলিয়ন স্মোলেনস্ক এলাকার সেমলেভো বা নেপোলিয়ন লেকে সোনা রয়েছে।

তবে রাশিয়ার এই বিজ্ঞানী বলছেন, সেমলেভো নয়, সম্রাট আসলে এই জায়গা থেকে ৪০ মাইল দূরে লুকিয়েছিলেন এই সোনা। আসল এই সোনা রয়েছে লেক বোলশায়ায়।

রাজা আলেকজান্ডার-১ এর দৃষ্টি ঘোরাতে নেপোলিয়ন লেক সেমলোভোর কাছে সামান্য কিছু সোনা পাঠিয়েছিলেন। আর তার আসল গুপ্তধন পাঠিয়েছিলেন বোলশায়ায়। নেপোলিয়নের হয়ে এসব দায়িত্ব পালন করেছিলেন তার ঘনিষ্ঠরাই।

যে বোলশায়ায় সোনা রেখেছিলেন সেটি রুডনিয়ার কাছে মস্কো থেকে প্রায় ৪০০ কি.মি দূরে বোলশায়া রুতাভেচ লেকে এই সোনা ও গুপ্তধন রাখা হয়।

ইতিহাসবিদদের বহু দিনের দাবি, ৪০০টি ওয়াগন ভর্তি সোনা নেপোলিয়নের ৫০০ জন ঘোড়সওয়ার ও ২৫০ জন এলিট ওল্ড গার্ডের প্রহরায় ছিল।

আরও পড়ুন... গুণীজনের ১০০ বাণী , যা আপনার জীবনকে বদলে দিতে পারে