রবিবার, ১৭ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ইং। ৫ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ। রাত ১১:২৭








প্রচ্ছদ » আইন ও আদালত

১৫৫ বছরের ইতিহাসে এই প্রথম কয়েদিদের সকালের খাবারে পরিবর্তন আসছে

ঔপনিবেশিক শাসকদের ১৮৬৪ সালে বেঙ্গল কারাবিধি অনুসারে কয়েদিদের সকালের নাস্তায় রুটি ও আখের গুড় পরিবেশন করা হচ্ছে। কিন্তু গত বছরের মে মাসে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে কারা অধিদফতরের একটি সুপারিশ পাঠানো হয়েছে।

এতে সকালের নাস্তায় সপ্তাহের দুই দিন খেচুরি, চারদিন রুটি-সবজি ও বাকি দিনগুলোতে রুটি-হালুয়া পরিবেশনের কথা বলা হয়েছে।

কারা অধিদফতরের সহকারী পরিদর্শক আমিরুল ইসলাম গত মঙ্গলবার গণমাধ্যমকে বলেন, কয়েদিরা বহুদিন ধরে সকালের খাবারে পরিবর্তন আনার দাবি জানিয়ে আসছেন। তাদের কথা ভেবেই এ পরিবর্তনের সুপারিশ করা হয়েছে।

আমিরুল ইসলাম বলেন, কাজেই এই খাবারের তালিকার পরিবর্তনের জন্য তারা এখন উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের অনুমোদনের অপেক্ষায় আছেন।

সরকারের এ উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন আইন ও সালিশ কেন্দ্রের সাবেক পরিচালক নূর খান লিটন। তবে কারাগারের সার্বিক অব্যবস্থাপনা ও খাবারের নিম্ন মান নিয়েও তিনি উদ্বেগও প্রকাশ করেন।

তবে নতুন সুপারিশ বাস্তবায়ন হলে কয়েদিদের পরিবেশিত খাবারে কিছুটা উন্নতি হবে বলে তিনি মনে করেন।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা বলেন, এ সুপারিশের বাস্তবায়নের জন্য তহবিল বরাদ্দ স্থগিত রয়েছে। অর্থমন্ত্রণালয় অতিরিক্ত ২০ কোটি ৪০ লাখ টাকা বরাদ্দ দেয়ার পর কারা অধিদফতর দেশজুড়ে ১৩টি কেন্দ্রীয়সহ ৬৪ কারাগারে নতুন তালিকার খাবার পরিবেশন করবে।

আরও পড়ুন... বিখ্যাত প্রেমের কবিতা