বৃহস্পতিবার, ১৯শে জুলাই, ২০১৮ ইং। ৪ঠা শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ। দুপুর ২:০১








প্রচ্ছদ » লাইফ স্টাইল

ছাত্রীদের কী ধরনের অন্তর্বাস পরে স্কুলে আসতে হবে তা অবিভাবকের লিখে পাঠালো স্কুল কর্তৃপক্ষ

ছাত্রীদের কী ধরনের অন্তর্বাস পরে স্কুলে আসতে হবে তা অবিভাবকের লিখে পাঠিয়ে বিতর্কে স্কুল কর্তৃপক্ষ।সেখানে বলা হয়েছে,  সাদা কিংবা ধূষর বর্ণের অন্তর্বাস পরে স্কুলে আসতে হবে।এতে করে অভিভাবকদের মনে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।কেননা তাদের দাবি তাদের মেয়েরাসহ তারা সবাই ম্যাচিউট।এই ধরনের নির্দেশনা দিয়ে শিধু শুধুই মেয়েদের হয়রানি শুরু করেছে। তাই অভিযোগের বিষয়টি নিয়ে অযথা বিতর্ক ও জটিলতা তৈরি করা হচ্ছে।ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের পুনের একটি স্কুলে।

এমআইটি বিশ্বশান্তি গুরুকুল স্কুল। পুনের এই বিখ্যাত স্কুল ছাত্রীদের ডায়েরিতে লিখে অভিভাবকদের কাছে নির্দেশিকা পাঠিয়েছে। তবে বিষয়টিকে নিয়ে শুধু প্রশ্নই তোলা হয়নি, যেভাবে স্কুল কর্তৃপক্ষ বিষয়টিকে লাগু করতে চাইছে, তা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন অভিভাবকরা। স্কুলের নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, ছাত্রীরা শুধুমাত্র সাহা কিংবা ধূষরবর্ণের অন্তর্বাস পরে আসতে পারবে স্কুলে।অভিভাবকরা বলছেন, ছাত্রীরা কী ধরনের অন্তর্বাস পরবে, সেটা ডায়েরিতে লেখা যুক্তি যুক্ত নয়। ছাত্রী এবং অভিভাবকরা সবাই পরিণত, তাই কী ধরনের জিনিস পরা উচিত, তা নিয়ে তারা অবগত বলে মত প্রকাশ করেছেন।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন...

স্কুলের লাইব্রেরি ব্যবহারের জন্যও বাড়তি টাকা নেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। অভিভাবক এবং ছাত্রীদের প্রশ্ন, যদি তাঁরা ফি ইতিমধ্যেই জমা দিয়ে থাকেন, তাহলে, সব কিছুর জন্য বাড়তি চার্জ নেওয়া হচ্ছে।স্কুলের অধ্যক্ষ পদ্মা গিরি ধান্য বলেছেন, স্কুলে ছাত্রীদের জন্য নির্দিষ্ট পোশাক বিধি রয়েছে। তাঁর মতে, সাদা পোশাকের নিচে অন্তর্বাসের রং যদি অন্য কিছু হয়, তাহলে ছাত্রীরা টিজিং-এর শিকার হতে পারে। সেই জন্যই এই নির্দেশিকা।স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, অভিভাবকরা রাজ্যের স্কুল শিক্ষা দফতরের ডিরেক্টরের সঙ্গে দেখা করে বিষয়টি সম্পর্কে জানিয়েছেন। নির্দেশিকা সরিয়ে দেওয়ার আবেদনও তারা করেছেন বলে জানা গিয়েছে।

এমআইটি গ্রুপ অফ ইনস্টিটিউট-এর এগজিকিউটিভ ডিরেক্টর সুচিত্রা কারাড নাগারে স্কুলের পদক্ষেপের পাশেই দাঁড়িয়েছেন। নির্দেশিকাকে বিশুদ্ধ বলে বর্ণনা করেছেন তিনি।নির্দেশিকার বিরুদ্ধে অভিভাবকরা বিক্ষোভও দেখিয়েছেন স্কুলে বাইরে। তাঁদের আরও অভিযোগ, ছাত্রীদের বেশিবার শৌচাগারে যেতে বাধা দেয় স্কুল কর্তৃপক্ষ।ছাত্রীদের ডায়েরিতে দেওয়া হয়েছে, ছাত্রীরা যদি স্কুলে খাওয়ার জল কিংবা বিদ্যুৎ বেশি ব্যবহার করে তাহলে ৫০০ টাকা জরিমানা করা হবে।



সর্বশেষ সংবাদ

এরদোগান তুরস্কে দুই বছরের জরুরি অবস্থা তুলে নিল

পূর্ণিমার সাথে বিচ্ছেদের ব্যপারে এবার মুখ খুললেন স্বামী ফাহাদ!

পগবা বিশ্বকাপ জয়ের পদকটা মাকে পরিয়ে দিলেন

ঘরের মেঝেতেই পচল স্ত্রীর লাশ, নির্বাক শুয়ে শুয়ে দেখলেন স্বামী!

মাঝ আকাশেই দুই প্রশিক্ষণ বিমানের সংঘর্ষ, নিহত ৪

পরীক্ষার ফল খারাপ করলে সন্তানকে বকাঝকা করবেন না: শেখ হাসিনা

ভাইয়ের মৃত্যুর বদলা নিতে খাবারে বিষ মেশাল ছাত্রী

যেখানে মজুত রয়েছে হাজার হাজার কোটি টন হীরে!

যে কয়টি কলেজে পাস করেনি একজনও

শাওমির আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু করল বাংলাদেশে

সৌদিতে আরও এক বাংলাদেশী হজ যাত্রীর মৃত্যু!

রাজধানী মিরপুরে বাড়ির নিচে গুপ্তধনের সন্ধান !

সমালোচিত সেই আসাদ পংপং ১৪ দিনের রিমান্ডে

এইচএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন ২০ থেকে ২৬ জুলাই 

‘নারী হয়ে জন্ম নেয়ায় জন্য নিজের প্রতিই নিজের ঘৃণা জন্মাচ্ছিল’

এবার ফ্রান্স কোচ দেশমের পদত্যাগ দাবি!

৬ ঘন্টার ব্যবধানে ২ ভাইয়ের লাশের ভার বইতে হলোঃ পলক

এ বছরও ছেলেদের চেয়ে এগিয়ে মেয়েরা

তিন শিক্ষিকার সঙ্গে যৌন হয়রানির দায়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক বরখাস্ত

সে পানিতে গোসল করলেই খাড়া হয়ে যায় মাথার চুল!





error: Content is protected !!
Copy to clipboard